প্রথম পাতা , শীর্ষ খবর , শাহরাস্তি , ব্রেকিং নিউজ

শাহরাস্তিতে আওয়ামী লীগের বৈঠকে ৫ নেতা অবরুদ্ধ

person access_time 1 month ago access_time Total : 73 Views

স্টাফ রিপোর্টার ঃ শাহরাস্তিতে আসন্ন সম্মেলনকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের বৈঠক শেষে ৫ নেতাকে অবরুদ্ধ করে রাখার খবর চাউর হয়েছে। গতকাল শনিবার রাতে শাহরাস্তি পৌর মেয়র হাজী আব্দুল লতিফের বাসায় এ ঘটনা ঘটে। উপস্থিত কর্মী ও বিভিন্ন সূত্র জানায়, ওই রাতে সম্প্রতি কেন্দ্রীয় আ’লীগের নিদের্শে সারা দেশের ন্যায় শাহরাস্তি উপজেলা আ’লীগ আসন্ন সম্মেলন কে লক্ষ্য করে দলীয় কর্মী সংগ্রহের ফরম বিতরণে এক সভা আহবান করে। ওই দলীয় মনিটরিং টিমের বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আ’লীগ সভাপতি ফরিদ উল্লাহ চৌধুরী, জেলা আ’লীগ সদস্য পৌর মেয়র হাজী আব্দুল লতিফ , জেলা আ’লীগের সদস্য ও জেলা পরিষদ সদস্য হুমায়ুন কবির মজুমদার উপস্থিত ছিলেন জেলা আ’লীগের সদস্য ও উপজেলা আঃ লীগ সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান মিন্টু, সিনিয়র সহ-সভাপতি মোস্তফা কামাল মজুমদার, আ’লীগ নেতা সালেহ আহম্মেদ বি. এস সি.।

ওই মিটিং চলার সময় আ’লীগ যুবলীগ ছাত্রলীগ সহ বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের কর্মী -নেতৃবৃন্দ বৈঠকে উপস্থিত উপজেলা নেতৃবৃন্দকে দলীয় ফরম উন্মুক্ত করা হচ্ছে না কেন এই বিষয়টি জানতে চান। তখন কিছু অতি উৎসাহী কর্মী ও নেতৃবৃন্দ হট্টগোল শুরু করলে চরম উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে র্তক বেধেঁ গেলে উত্তেজিত কর্মীরা দলীয় নেতৃবৃন্দকে ২ ঘন্টা অবরুদ্ধ করে রাখে। পরে বিষয়টি অনেকক্ষণ গড়িয়ে গেলে স্থানীয় উপজেলা আ’লীগ নেতৃবৃন্দ বিষয়টি স্থানীয় সাংসদ দেশের বাইরে থাকায় চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক দায়িত্ব প্রাপ্ত নেতা মাহবুব আলম হানিফকে অবগত করেন বলে জানান। এদিকে বিবাদমান বিষয়টি স্থানীয় সাংসদ দেশে এলে ও পরবর্তীতে দলীয় মিটিংয়ে এটির সুরাহা হবে বলে নেতৃবৃন্দ আস্বস্ত করলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে বলে জানা যায়। উপজেলা আ’লীগের দায়িত্বশীল এক নেতা জানান,ওই ফরম বিতরণ কে কেন্দ্র করে বিভিন্ন ইউনিয়নের কিছু উৎশৃংখল সহযোগী সংগঠনের কর্মী ফরম চিন্তাই, ফরম বিতরণে বাধা, আ’লীগ নেতৃবৃন্দ কে মারধর করার মতো কার্যকালাপ চালাবার মতো অভিযোগ রয়েছে। যার ফলশ্রুতিতে সুচিপাড়া উত্তর ইউপির আ’লীগ দলীয় ফরম পূরণ করাকে কেন্দ্র করে নজরুল ইসলাম মহসিন নামে (৪০) বেদম মারধর করে, সে বর্তমানে শাহারাস্তি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এদিকে যুবলীগের উপজেলা আহবায়ক আহসান মঞ্জুরুল ইসলাম জুয়েল মুঠোফোনে জানান, ঘটনার সময় আমি ও আমরা সেখানে কেউ ছিলাম না। তবে দলীয় সিদ্ধান্ত ও সংগঠন বিধি মোতাবেক ফরম বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা হওয়ার কথা ছিল।তবে সে ভাবে ফরম বিতরণ না হওয়ায় কর্মীদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে বলে জানতে পেরেছি। এদিকে উপজেলা আ’লীগের সভাপতি ও সম্পাদক ৫ নেতাকে অবরুদ্ধ করে রাখার বিষয়টি গনমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন।

content_copyCategorized under