শেষ পাতা , ব্রেকিং নিউজ , মতলব দক্ষিণ

মতলব দক্ষিণে চরপাথালিয়া গ্রামের যুবলীগ নেতা সাইফুল ইসলাম উপর হামলা ॥ আহত ৫

person access_time 1 week ago access_time Total : 16 Views

মতলব অফিস ঃ মতলব দক্ষিণ উপজেলার পৌরসভাস্থ ৪নং ওয়ার্ডের চরপাথালিয়া গ্রামের প্রবাসী যুবলীগ নেতা সাইফুল ইসলামর উপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে সন্ত্রাসীরা। এ হামলায় যুবলীগ নেতা মোঃ সাইফুল ইসলাম (৩২) ও মোঃ ইব্রাহীম (৩৬) গুরুতর রক্তাক্ত জখম হয়েছে। আহত হয়েছে ৫ জন। অন্যান্যদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত ৫ জুন রয়মনেন নেছা মহিলা ডিগ্রি কলেজের সামনে রাত আনুমানিক ৮টা ২০ মিনিটে। আহতদেরকে প্রথমে মতলব সরকারি হাসপাতালে পরে চাঁদপুর সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের দু’জনের অবস্থাই আশঙ্কাজনক। আহত যুবলীগ নেতা সাইফুল ইসলাম জানান, এলাকায় আমার জনপ্রিয়তায় ইর্ষাণিত হয়ে চরমুকুন্দি গ্রামের বাচ্চু প্রধানের ছেলে আনিছুর রহমান আনু, নিলক্ষী গ্রামের জাকির হোসেনের তসিফ, কদমতলী গ্রামের সাত্তার মোল্লার ছেলে আবুল হাসনাত খোকা, চরমুকুন্দি গ্রামের বজলু প্রধানের ছেলে সেলিম হোসেন, সিরাজ সরকারের ছেলে ইমন, ইকবাল মোল্লার ছেলে হাবিব মোল্লা, আবু তাহেরের ছেলে রাকিব হোসেন, কালাম হাজীর ছেলে নাজমুল হোসেন, নোমান মোল্লার ছেলে রাজিব মোল্লা, মজিব সওদাগরের ছেলে ফয়সাল সওদাগর, লিয়াকত আলীর ছেলে মাঈনউদ্দিন প্রধানীয়া, তাফাজ্জল হোসেনের ছেলে শিবলী খানসহ ১০/১৫ জনের একটি সংঘবদ্ধ চক্র আমাদের উপর দেশীয় অস্ত্র ও বাশ, লাঠি দিয়ে হামলা চালায়। এ সময় তারা আমাকে সিএনজি থেকে নামিয়ে টানা হ্যাছড়া করে নগদ ৫ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবী করে এবং আমার কাছে থাকা ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা ও এক্স মেক্স আইফোন, যার মূল্য ১ লক্ষ ১৫ হাজার টাকা নিয়ে যায়। আহত ইব্রাহিম জানায়, আমার পকেট থেকে নগদ ৫০ হাজার টাকা, একটি মোবাইল সেট নিয়ে গেছে। সাইফুল ইসলাম আরো জানান, আমি পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে এলাকার নেতাকর্মীদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় ও ঈদ উপহার প্রদান এবং চাঁদপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব এড. নুরুল আমিন রুহুল সাহেবের বাড়িতে নেতাকর্মী নিয়ে গিয়ে সাক্ষাত ও শুভেচ্ছা বিনিময়ের অপরাধে তারা আমার উপর হামলা চালায়। হামলাকারীরা এলাকায় বিভিন্ন সন্ত্রাসী এবং চাঁদাবাজী কার্যকলাপ ও মাদকসহ বিভিন্ন অপরাধের সাথে জড়িত থেকে এলাকার পরিবেশ নষ্ট করে ফেলেছে। আমি এ ঘটনার সুষ্ঠ বিচার চাই। এ ব্যাপারে গত ৮ জুন আহত সাইফুল ইসলাম বাদী হয়ে মতলব দক্ষিণ একটি মামলা দায়ের করা করছে। এদিকে আহত যুবলীগ নেতা সাইফুল ইসলামকে হাসপাতালে দেখতে যান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি রেজাউল দেওয়ান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আজিজ বাবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক গোলাম মোস্তফা, মতলব পৌরসভার প্যানেল মেয়র আবুল বাশার পারভেজ, কাউন্সিলর ওয়াজিদুজ্জামান মৃধা, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি রিয়াদুল আলম রিয়াদসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। এ সময় তাঁরা আহত সাইফুল ইসলাম ও ইব্রাহিমকে শান্তনা দেন।

content_copyCategorized under